গৃহবধুর মাথার চুল কেটে দেওয়ায় ইউপি চেয়ারম্যান সহ ৯ জনের নামে মামলা

লেখক: নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশ: ৮ মাস আগে

ঠাকুরগাওয়ে পীরগঞ্জে খারাপ কাজের সাথে জড়িত থাকার অভিযোগ তুলে এক গৃহবধুকে মারপিট করে তার মাথার চুল কেটে দেওয়ার অভিযোগে বৈরচুনা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সহ ৯ জনের বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে। বুধবার(১৫ জুন) রাতে থানায় এ মামলা করা হয়।
পুলিশ সূত্রে জানা যায়, অজ্ঞাত নামা এক ছেলের সাথে অবৈধ সম্পর্ক রয়েছে এমন অভিযোগে গত ১২ জুন রাতে বৈরচুনা ইউনিয়নের ইন্দ্রইল মোল্লাপাড়া গ্রামের হাসান আলীর স্ত্রী শহর বানুকে ওই ইউনিয়নের চেয়ারম্যান টেলিনা সরকার হিমু সহ কতিপয় লোক মারপিট করে এবং চেয়ারম্যান নিজেই কাঁচি দিয়ে তার মাথার চুল কেটে দেয় এবং ভয়ভীতি দেখিয়ে ফাঁকা নন জুডিশিয়াল স্ট্যাম্পে স্বাক্ষর নেয়।

এরপর বিষয়টি নিয়ে বাড়াবড়ি না করার জন্য ঐ নারীকে শাশায় ইউপি চেয়ারম্যান। চেয়ারম্যানের ভয়ে নিজ বাড়িতে অবস্থান করতে থাকে ঐ গৃহবধু। মারপিটের কারণে ঐ নারী অসুস্থ হয়ে পড়লে বুধবার সকালে তাকে পীরগঞ্জ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এরপর ঘটনার কথা ছড়িয়ে পড়ে বিভিন্ন মহলে।

খবর পেয়ে থানা পুলিশ হাসপাতালে গিয়ে তার খোঁজ খবর নেন এবং রাতেই ইউপি চেয়ারম্যান সহ ৯ জনের নামে থানায় মামলা করেন নির্যাতিত ঐ গৃহবধু।

এ বিষয়ে ইউপি চেয়ারম্যান টেলিনা সরকার হিমু মোবাইল ফোনে জানান, ঐ নারী এলাকার পরিবেশ খারাপ করছিল। এজন্য তিনি নন, এলাকার লোকজন এ কাজ করেছে।

পীরগঞ্জ থানার ওসি জাহাঙ্গীর আলম জানান, চেয়ারম্যান সহ ৯ জনের বিরুদ্ধে থানায় মামলা হয়েছে। অপরাধীদের আটক করতে পুলিশ মাঠে নেমেছে।

বিডি/ডেস্ক