যাত্রীবাহী চলন্ত ট্রেন থামিয়ে মদ পান করতে গেলেন চালক, অতপর…

লেখক: আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশ: ৯ মাস আগে

চলন্ত ট্রেন থামিয়ে মদ পান করতে বাজারে গিয়েছিলো চালক, প্রায় এক ঘণ্টার মতো থামিয়ে রেখেছিলেন যাত্রীবাহী ওই ট্রেন। যার ফলে হাঁসফাঁস গরমে চরম অস্বস্তিতে পড়েন যাত্রীরা। শুরু হয় হট্টগোল।আর এতেই ধরা পড়ে যান মদ পান করতে যাওয়া সেই চালক।

সোমবার (২ মে) ভারতের বিহারের সমস্তিপুর জেলার হাসানপুর রেল স্টেশনে এ ঘটনা ঘটে।

করণবীর যাদব নামে অভিযুক্ত সেই সহকারী চালককে গ্রেফতার করেছে জিআরপি। ঘটনার তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন ডিভিশনাল রেলওয়ে ম্যানেজারও।

ভারতীয় গণমাধ্যম সূত্রে জানা যায়, ভারতের বিহারের সমস্তিপুর রেল বিভাগের সেই ট্রেনটি সমস্তিপুর থেকে সহরসায় যাচ্ছিল। মাঝপথে সেটা হাসানপুর স্টেশনে দাঁড়ায় রাজধানী এক্সপ্রেসকে পথ ছাড়ার জন্য। এরপরই চালক করণবীর যাদব ট্রেন থেকে গায়েব হয়ে যান। ফলে সময় মতো সিগন্যাল হলেও ট্রেন থমকে থাকে।

একটা সময় হাসানপুর স্টেশনের সহকারী স্টেশন মাস্টার নিজে সেই ট্রেনের সহকারী চালকের খোঁজে নামেন। এদিকে তীব্র গরমে দীর্ঘক্ষণ দাঁড়িয়ে থাকা ট্রেনের যাত্রীরা অনেকেই স্টেশনে নেমে পড়েন। কেন ট্রেন চলছে না, তা নিয়ে হই-হট্টগোলও শুরু হয়।

এর মধ্যে সহকারী চালকের খোঁজে মাঠে নামে জিআরপিও। শেষ পর্যন্ত তারাই স্থানীয় বাজারে হদিশ পায় মদ্যপ চালকের। শরীরের টাল রাখতে পারছেন না তিনি তখন। নিজের পায়ে দাঁড়ানোর মতো ক্ষমতাটুকু নেই। অভিযুক্ত চালককে গ্রেপ্তার করেছে জিআরপি। পাশাপাশি ডিভিশনাল রেলওয়ে ম্যানেজার (ডিআরএম) অলোক আগারওয়াল গোটা ঘটনার তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন।

এর আগে ক’দিন আগে পাকিস্তানের একটি ঘটনা প্রকাশ্যে আসে। সেখানে চালক ট্রেন থামিয়ে দই কিনতে যান। ট্রেন নিয়ে গন্তব্যে পৌঁছানোর বদলে মাঝপথে সেটি দাঁড় করিয়ে তার এহেন কীর্তি ভাইরাল ভিডিও হয়ে ছড়িয়ে পড়ে। আর তার জেরেই বরখাস্ত করা হয় অভিযুক্ত ওই ট্রেন চালককে। বরখাস্ত করা হয় ওই ট্রেনের সহকারীকেও।

ডেস্ক/বিডি