২৫ মার্চ কালরাত্রি হওয়ায় জন্মদিন পালন করেন না অভিনেতা ফারুক

লেখক: বাংলা ২৪ ভয়েস ডেস্ক
প্রকাশ: ১০ মাস আগে

বাঙালি জাতির ইতিহাসে ২৫ মার্চ একটি কালো অধ্যায়। মহান মুক্তিযুদ্ধের শোকস্মৃতিবাহী গণহত্যা আর নিষ্ঠুর ধ্বংসযজ্ঞের ‘কালরাত’। জাতীয় ‘গণহত্যা দিবস’। জাতি গভীর বেদনায় প্রতিবছর স্মরণ করে ১৯৭১ সালের এই দিনে পাকিস্তানি হানাদার বাহিনীর কাপুরুষোচিত হামলার শিকার নিরীহ শহীদ আর প্রতিরোধসংগ্রামে আত্মদানকারী বীর যোদ্ধাদের।

আজকের এই দিনেই জন্ম নিয়েছেন জনপ্রিয় অভিনেতা ফারুক আহমেদ। বাঙালি জাতির এই কালো দিন, কালরাতের দিনটি নিজের জন্মদিন পালন করেন না। এই দিনে শহীদদের প্রতি সম্মান জানিয়ে জন্মদিন পালন থেকে বিরত থাকেন অভিনেতা।

বিষয়টি নিয়ে নিজের ফেসবুকে ফারুক লিখেছেন, ‘২৫ মার্চ গণহত্যা দিবস। আজ ২৫ মার্চ। আজ কালরাত্রি। আজ গণহত্যা দিবস। ১৯৭১ সালের ২৫ মার্চের এই রাতে পাকিস্তানি হানাদার বাহিনী ঢাকা শহরে অতর্কিতে ঘুমন্ত জনগণের ওপর আক্রমণ চালায়। হত্যা করে হাজার হাজার নিরীহ মানুষ। এ ইতিহাস সকলেরই জানা। ’

তিনি বলেন, ‘যে বিষয়টি মানুষ জানে না তা হলো, ২৫ মার্চ আমার জন্মদিন। হায় রে কপাল! ২৫ মার্চ কালরাত্রি আর গণহত্যা দিবসে আমার জন্মদিন। সকল শহীদের প্রতি সম্মান জানিয়ে আমি গণহত্যা দিবসে আমার জন্মদিন পালন করা থেকে বিরত থাকি। সকলকে আমার ভালোবাসা ও শ্রদ্ধা। ’

উল্লেখ্য, ফারুক আহমেদ বাংলাদেশের একজন খ্যাতিমান নাট্যকার এবং অভিনেতা। তিনি জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে ভূগোল ও পরিবেশ বিষয়ে পড়াকালীন সময়ে মঞ্চে অভিনয় দিয়ে অভিনয়জীবন শুরু করেন। বাংলাদেশ টেলিভিশনে প্রচারিত বারো রকম মানুষ নাটকে রসিকলাল নামের এক নেতিবাচক চরিত্রে অভিনয়ের মাধ্যমে সারা দেশে পরিচিতি লাভ করেন। ফারুক জনপ্রিয় নাট্যকার ও লেখক হুমায়ূন আহমেদের নাটকের নিয়মিত মুখ ছিলেন।

ডেস্ক/বিডি